তাহলে কি দালালরাই দেশের ভবিষ্যৎ!

তাহলে কি দালালরাই দেশের ভবিষ্যৎ!

সোনিয়া, প্রতিনিধি, সোনারগাঁ, নারায়ণগঞ্জ : দেশের প্রতিটা সেক্টরে দালালদের দখল দাঁড়িত্ব রয়েছে! দালালরা বাংলাদেশের প্রতিটা পদস্থে মানুষদের দালালের মাধ্যমে নানান রকম হয়রানি করে থাকে! দালালদের হয়রানিতে বাত যায়না ধনী-গরীব কেউ! কোন না কোন ভাবে দালালদের হয়রানির শিকার হতে হয়! এ দালালদের হয়রানিত্বের শিকার হয়ে হাজার হাজার প্রবাসী-প্রবাসে গিয়ে কাজ না পেয়ে আজ নিরুপায়! বিদেশ নেওয়ার কথা বলে দালালরা লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়ে যাচ্ছে! কারো জমি, কারো স্বর্ণ,কারো বাড়ি বিক্রি করে দালালদের হাতে টাকা তুলে দিচ্ছে! দালালরা বাংলাদেশে মানুষদের সরলতার সুযোগ নিয়ে বিদেশ নেওয়ার কথা বলে দিনের পর দিন সময় পারি দিয়ে ফ্যামিলিদের নিঃস্ব করে দিচ্ছে! আর যদিও দালালের মাধ্যমে বিদেশ যাওয়া হয় তারপরে কাজ না পেয়ে আরো বেশি নিঃস্ব হয়ে যাচ্ছে প্রবাসী ওঁ প্রবাসীদের ফ্যামিলি! সরকারি সেক্টরে কাজের জন্য গেলে দালাল লাগে, দালাল ছাড়া সহজে কাজ করা যায়না, দালাল ছাড়া কোন কিছু চেনা ও যায় না! অনেক ঘুরতে হয়! সরকারি কর্মকর্তারা দালালদেরই বেশি চিনে! ভূমি অফিসে গেলে দালালদের চক্রান্তে ফাঁদে পা দিতে হয়! পাসপোর্ট অফিসে গেলে দালাল ছাড়া কাজ করলে, সহজে কাজ আদায় করা যায় না! আবার দালাল দিয়ে কাজ করলে অতি দ্রুত কাজ আদায় হয়ে যায়! জমি বিক্রি করতে গেলে- জমি ক্রয় করতে গেলেও দালালদের সহায়তা নিতে হয়! বর্তমানে দালালদের দখলদারিত্ব দিন দিন বেড়েই চলতেছে!
আমি নিজে নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক শাখা পাসপোর্ট অফিসে গিয়ে ভুক্তভোগি! আমি যখন পাসপোর্ট করতে অফিসে গিয়েছিলাম পাসপোর্ট করার জন্য, তখন বিভিন্ন অজুহাত দেখিয়ে আমার পাসপোর্ট না করে দেওয়া হয়, পরে দালালদের মাধ্যমে পাসপোর্ট করতে গেলে অতি দ্রুত’ ১৫ দিনের মধ্যে আমার পাসপোর্ট আমি পেয়ে যাই! বর্তমানে দালালেরা হাটে, বাজারে, ঘাটে, ব্যাংকে সব জায়গায়ই দখলদারিত্ব করতেছে! দালালের খপ্পরে পড়ে অনেক সময় কম দামি জিনিস বেশি দামে কিনতে হয়, এ দালালদের কারণে আবার অনেক সময় বেশি দামি জিনিসও কম দামে বিক্রি করতে হয়! বিদ্যুৎ অফিসগুলোতে ও মিটার আবেদন করতে গেলে দালাল ছাড়া সহজে মিটার পাওয়া যায় না!
হাসপাতাল গুলোতে ওঁ দালালদের দখলদারিত্ব রয়েছে! এ দালালদের কারণে দেশ ও দেশের মানুষের অনেক ক্ষতি হয়ে থাকে! মানুষ প্রতিনিয়ত দালালদের খপ্পরে পড়তেছেই! কোন না কোন ভাবে দালালদের ব্যবহার করে যে কোন একটা কাজ উদ্ধার করতে হয়! অনেক সময় দেখা যায় একজন ব্যবসায়ী লক্ষ লক্ষ টাকা ইনভেস্ট করে যা লাভ করে, দালালরা এর চেয়ে বেশি ওই ব্যবসায়ীর কাছ থেকে দালালি করে লাভ করে! আর সবচেয়ে বড় কথা হচ্ছে ঘুষখোরেরা সবসময় দালালদের বেশি চিনে! দালালের মাধ্যমে না গেলে তারা সহজে কাজ করে দেয় না! বর্তমানে দালাল শব্দটা একটা আতঙ্কের নাম! এ দালালদের দখলদারিত্ব আর কতদিন! বাংলাদেশের প্রশাসনের সুদৃষ্টি আকর্ষণ করছি, সরকারি বেসরকারি সকল প্রতিষ্ঠান এবং যত রকমের কাজ আছে, সব স্থান থেকে দালালদের দখল দাড়িত্ব নির্মূল করার জন্য অনুরোধ করা হচ্ছে!
সাংবাদিক সোনিয়া বেগম

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করতে ক্লিক করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazartvsite-01713478536